হোয়াইটওয়াশের ধাক্কা লাগল টাইগারদের র‍্যাংকিংয়ে

0
11

সিরিজ শুরুর আগে র‍্যাংকিংয়ে নিজেদের অবস্থান আরও শক্তপোক্ত করার সুযোগ ছিলো বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের জন্য। তবে শঙ্কা ছিলো উল্টোটাও। নেতিবাচক ফলের মাশুল হিসেবে খোয়াতে হতো রেটিং পয়েন্ট। হয়েছেও ঠিক তাই।

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে বাংলাদেশের তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজের ফল সবারই জানা। ঘরের মাঠে প্রায় ৪৪ মাস পর ওয়ানডে সিরিজ জিতে বাংলাদেশকে হোয়াইটওয়াশ করেছে স্বাগতিকরা। শ্রীলঙ্কার মাটিতে প্রায় ১২ বছর পর সিরিজ হার এটি টাইগারদের।

এ সিরিজে কোনো ম্যাচ না জেতায় র‍্যাংকিংয়ে নিজেদের অবস্থানে কোনো হেরফের হয়নি বাংলাদেশের। তবে রেটিং পয়েন্টের ব্যবধানে কমে এসেছে অনেকটাই। নিজেদের সপ্তম অবস্থান ধরে রাখলেও, মূল্যবান ৪টি রেটিং পয়েন্ট হারিয়েছে বাংলাদেশ।

বিশ্বকাপ ব্যর্থতার পরেও বাংলাদেশ দলের রেটিং পয়েন্ট ছিলো ৯০, শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সিরিজে ৩-০ ব্যবধানে জিতলে রেটিং বেড়ে হতে পারতো ৯৩। কিন্তু উল্টো ০-৩ ব্যবধানে হেরে যাওয়ায় খোয়াতে হয়েছে ৪ রেটিং পয়েন্ট।

এদিকে বাংলাদেশকে হোয়াইটওয়াশ করে ৩ রেটিং পয়েন্ট পেয়েছে শ্রীলঙ্কা, ৮২ রেটিং নিয়ে অষ্টম অবস্থানে রয়েছে। সিরিজ শুরুর আগে বাংলাদেশের সঙ্গে ব্যবধান ১১ রেটিংয়ের থাকলেও, সেটি কমে এখন হয়েছে মাত্র ৪।

আইসিসি ওয়ানডে র‍্যাংকিং

১. ইংল্যান্ড – ১২৫ রেটিং
২. ভারত – ১২২ রেটিং
৩. নিউজিল্যান্ড – ১১২ রেটিং
৪. অস্ট্রেলিয়া – ১১১ রেটিং
৫. দক্ষিণ আফ্রিকা – ১১০ রেটিং
৬. পাকিস্তান – ৯৭ রেটিং
৭. বাংলাদেশ – ৮৬ রেটিং
৮. শ্রীলঙ্কা – ৮২ রেটিং
৯. ওয়েস্ট ইন্ডিজ – ৭৭ রেটিং
১০. আফগানিস্তান – ৫৯ রেটিং

এছাড়া আয়ারল্যান্ড ৫১, জিম্বাবুয়ে ৪৪, নেদারল্যান্ডস ৩৭, স্কটল্যান্ড ৩৬, নেপাল ১৯, আরব আমিরাত ১০ ও পাপুয়া নিউগিনির ঝুলিত রয়েছে ৬ রেটিং পয়েন্ট।

মন্ত্যব্য সমূহ